ঢাকা, মঙ্গলবার ৫ মার্চ ২০২৪, ২২শে ফাল্গুন ১৪৩০

হাটহাজারীতে সুদিন ফিরেছে সেলিনার

শান্ত ইসলাম দিপু | প্রকাশের সময় : সোমবার ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ০৮:২১:০০ অপরাহ্ন | চট্টগ্রাম প্রতিদিন
২০২২ সালে সেলিনার দুঃখ-দুর্দশার কথা শুনে তার পাশে দাঁড়ানো ও তার চার মেয়ের লেখাপড়ার খরচসহ আজীবন পরিবারটির পাশে থাকার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন সাবেক মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিন।
সে প্রতিশ্রুতির ধারাবাহিকতায় প্রতিবারের ন্যায় সেলিনার মেয়েদের মাদ্রাসার পুরো বছরের বেতন পরীক্ষার ফি ও আনুসাঙ্গিক খরচ মাদরাসার ব্যাংক একাউন্টে জমা করে দেন  সাবেক মেয়র।
 
সেলিনার সহযোগীতার জন্য  রবিবার ( ১১ই ফেব্রুয়ারি)  সকালে হাটহাজারী উপজেলার সরকার হাট গুমানমর্দ্দন গ্রামে সেলিনার পাওয়া প্রধানমন্ত্রীর উপহারের সেই আবাসস্থলে যান আ জ ম নাছিরের প্রতিনিধি মোঃ আনিছুর রহমান চৌধুরী। এসময় উপস্থিত ছিলেন আ জ ম নাছির উদ্দিনের সহযোগী মোঃ আনিছুর রহমান চৌধুরী, হাটহাজারী উপজেলার ৪নং গুমানমর্দ্দন ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মজিবুর রহমান।
 
উল্লেখ্য যে, চট্টগ্রাম জেলা পুলিশ লাইন্সে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে চট্টগ্রাম প্রান্ত থেকে ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হয়ে তার দুঃখ-দুর্দশা ও জীবন সংগ্রামের কথা যখন বলছিলেন তখন সেলিনার পাশে দাঁড়িয়ে কথাগুলো শুনছিলেন  চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীন। তার কথা শুনে সেদিন তিনি সহযোগীতার হাত বাড়ান।
 
 সেলিনা আকতার প্রতিবেদককে বলেন, ‘যে আমার অসহায়-বঞ্চিত মেয়েদের উচ্চশিক্ষায় শিক্ষিত হওয়া পর্যন্ত পড়াশোনার দায়িত্ব নিয়েছেন সাবেক মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন। শুধু তাই নয়, আমার মেয়েদের যেন দুবেলা-দুমুঠো আহার জোটে সেজন্য দীর্ঘমেয়াদি আয়-রোজগারের ব্যবস্থা করে দিয়েছেন তিনি; যারপরনাই আমার মেয়েরা অনেক খুশি। মেয়েগুলোর দায়িত্ব নেওয়াতে আমি কৃতজ্ঞ।